বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:২৬ অপরাহ্ন

হেলমেট নাই তেল নাই

হেলমেট নাই তেল নাই

হেলমেট নাই তেল নাই

মাওলানা আমিনুল ইসলাম : হেলমেট নাই তেল নাই, কত ভালো কাম ভাই। আজ সকালে ঝিনাইদাহের কালিগন্জ থেকে যশোরে রওনা দিলাম। যানবাহন মোটর সাইকেল। পথিমধ্যে মোটর সাইকেলের পিপাসা লেগে গেল। হাইওয়ের পাশে বিশাল এক তেল পাম্প। ঢুকিয়ে দিলাম সেখানে। তেলের পাম্পে গিয়ে মনটা জুড়িয়ে গেল। সেখানে পাম্পের বক্সে ব্যানার টাঙানো— হেলমেট নাই তেল নাই।

ব্যানারটা দেখে কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ না দিয়ে পারলাম না। এরকম সচেতন মুলক লিখনী, এভাবে মানুষকে সতর্ক করার অভিনব কৌশল সত্যি প্রশংসনীয়।

আমাদের দেশে অধিকাংশ মানুষ ট্রাফিক আইন মানেনা। বিশেষ করে যারা মোটর সাইকেল চালায়, এর অধিকাংশ লোক বেপরোয়া। রাস্তায় গাড়ি চালায় বেপরোয়া গতিতে। আবার হেলমেট ব্যবহার করেনা অনেকেই।

হেলমেট ব্যবহার না করার দরুন, রাস্তায় দুর্ঘটনা ঘটছে সব সময়। সামান্য এক্সিডেন্টে হতাহত হচ্ছে। আমাদের দেশের আইন শৃংখলা বাহিনী সকল সময় মানুষকে সতর্ক করছে, ট্রাফিক আইন মানার জন্য। কিন্তু অনেকেই সেটা তোয়াক্কা করেন না। নিজের ইচ্ছে মত চলেন সবাই।

ঝিনাইদাহ জেলার কালিগন্জ উপজেলার হাইওয়ের পাশে ‌‘প্রিন্স ফিলিং স্টেশন’ এই উদ্যোগ, মানুষকে সতর্ক করা। ট্রাফিক আইন মানার প্রতি সকলকে উদ্বুদ্ধ করা, হেলমেট না থাকলে তেল দেওয়া হবেনা, এই মর্মে ব্যানার টাঙায়ে, সর্ব প্রকার মানুষকে জানান দেওয়া, এটা নিঃসন্দেহে মহৎ কাজ।

এরকম সকলের এগিয়ে আসা চাই। যারা গাড়ি বিক্রি করেন, যারা মেরামত করেন, যারা তেল সাপ্লাই দেন, সকলকেই সচেতন হওয়া প্রয়োজন। তাহলে দেখা যাবে, সকলেই আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হবে। দুর্ঘটনার সংখ্যা কমে যাবে।

বেশ কয়েক বছর আগে মালায়েশিয়া সফরে গিয়েছিলাম। সেখানকার মোটর সাইকেলওয়ালাদের দেখে খুবই আশ্চর্য হয়েছিলাম তখন।

ওখানে মোটর সাইকেলের লেন আলাদা। হেলমেট বিহীন কোন মোটর সাইকেল আমার নজরে পড়েনি। ড্রাইভার এর হেলমেট এবং পিছনে যে বসে আছে, তার ও হেলমেট।

এরকম হাজার হাজার মোটর সাইকেল দেখেছি, কোন একটা মোটর সাইকেল হেলমেট ছাড়া পায়নি কখনো। আর আমাদের দেশের অবস্থা হল, আমরা অধিকাংশ লোক হেলমেট পরি না। যদিও পরি, ড্রাইভার পর্যন্ত সীমাবদ্ধ। পিছনে যিনি বসেন, তার তো হেলমেট পাওয়া যাবে, এরকম হয়ত হাজার মোটর সাইকেলের মধ্যে একজন। অথচ নিয়ম হল, যিনি চালাবেন, যিনি চড়বেন, উভয়ের হেলমেট জরুরি।

তাই আসুন! আমরা সকলেই সচেতন হই।

লেখক : শিক্ষক ও সমাজ বিশ্লেষক

নিউজটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved 2018 shilonbangla.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com