সোমবার, ২৬ অগাস্ট ২০১৯, ১২:১৭ পূর্বাহ্ন

বিভিন্ন সন্ত্রাসী গ্রুপকে অস্ত্র সরবরাহ করতো খায়রুল

ভারতীয় অস্ত্র ব্যবসায়ী খায়রুল ইসলাম মণ্ডল ওরফে শরিফুল ইসলাম ভারত থেকে বেনাপোল হয়ে বাংলাদেশে অস্ত্র নিয়ে এসে দেশের বিভিন্ন সন্ত্রাসী গ্রুপের কাছে তা সরবরাহ করতো।

মঙ্গলবার (০১ নভেম্বর) ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) মিডিয়া সেন্টারে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা জানান মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) যুগ্ম কমিশনার আব্দুল বাতেন।

আব্দুল বাতেন বলেন, খায়রুল পশ্চিম বঙ্গের চব্বিশ পরগনার বাসিন্দা। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, তিনি পশ্চিমবঙ্গের একটি সন্ত্রাসী দলের কাছ থেকে অস্ত্র নিয়ে বালু অথবা মালবাহী ট্রাকে করে বেনাপোল দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করতো। পরবর্তী অস্ত্রগুলো ঢাকাসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন সন্ত্রাসী গ্রুপের কাছে সরবরাহ করতো।

জব্দ হওয়া অস্ত্রগুলোর মধ্যে কয়েকটির গায়ে ইউএসএ লেখা রয়েছে। তবে সেগুলো আসলে ইউএসএ’র কিনা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। অস্ত্রগুলো সুনির্দিষ্ট কী কাজে ব্যবহার হতো বা কার কাছে বিক্রি করতো তা তদন্ত করে বের করা হবে বলেও জানান তিনি।

পশ্চিমবঙ্গের ওই সন্ত্রাসী গ্রুপ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা এখনও গ্রুপটি সম্পর্কে নিশ্চিত নই। তবে এ বিষয়ে জানতে প্রয়োজনে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করা হবে।

অস্ত্রগুলো জঙ্গি কর্মকাণ্ডে ব্যবহারের জন্য আনা হয়েছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, যে কোনো অস্ত্র বাংলাদেশে আসার প্রধান রুট ভারত। তবে জঙ্গি কর্মকাণ্ডে ব্যবহৃত অস্ত্রের সঙ্গে এ অস্ত্রগুলোর মিল পাওয়া যায়নি। কার কাছে অস্ত্রগুলো সরবরাহ করা হতো তা নিশ্চিত না হয়ে বলা যাচ্ছে না। তবে বিষয়টি দ্রুততম সময়ে বের করার চেষ্টা করবো।

সোমবার (৩১ অক্টোবর) রাতে গাবতলী বাস স্ট্যান্ডের সামনে থেকে তাকে আটক করে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

এ সময় তার কাছ থেকে ৬টি বিদেশি পিস্তল, ৪ বিদেশি ওয়ান শ্যুটার, ১২টি ম্যাগজিন ও ৩৫ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved 2018 shilonbangla.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com