সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৯:৪৬ পূর্বাহ্ন

ফের নেতিবাচক পুঁজিবাজার

ফের নেতিবাচক পুঁজিবাজার

নিজস্ব প্রতিবেদক • টানা দশ দিনের দরপতনের পর একদিন ঝলক দেখিয়ে আগের মতো নেতিবাচক ধারায় ফিরে গেল পুঁজিবাজার। সপ্তাহের চতুর্থ দিনে দেশের দুই পুঁজিবাজারেই বড় দরপতন হয়েছে। এর মধ্যে লেনদেন আগের দিনের চেয়ে কিছুটা বাড়লেও হাতবদল হওয়া বেশিরভাগ শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের দাম কমেছে। বুধবার দিনের লেনদেন শুরুর পর প্রথম আধঘণ্টার মধ্যে দুই স্টক এক্সচেঞ্জের সূচকে কিছুটা ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা দেখা গেলেও বিক্রির চাপে তা বেশিক্ষণ টেকেনি। দিন শেষ ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের চেয়ে ৩০ পয়েন্ট বা দশমিক ৫০ শতাংশ কমে আবার ৬ হাজার একশোর ঘরে নেমেছে।

আগের দিন ডিএসইএক্স ৭১ পয়েন্ট বা এক দশমিক ১৭ শতাংশ বেড়ে ৬ হাজার ১২৮ পয়েন্টে উঠেছিল, যা সাড়ে ছয় মাসের মধ্যে একদিনে ডিএসইক্সের সর্বোচ্চ বৃদ্ধি। গত সপ্তাহের শেষ দিন বৃহস্পতিবার সামান্য বৃদ্ধি ছাড়া টানা ১০ কার্যদিবসে ডিএএসইএক্স প্রায় ৪ দশমিক ১২ শতাংশ কমে সোমবার এই সূচক ছয় হাজার পঞ্চাশের ঘরে নেমে যায়।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা যায়, ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩৯১ কোটি টাকা ৫৫ লাখ টাকা, যা আগের দিনের চেয়ে ২ কোটি ৮৫ লাখ টাকা বেশি। টাকা অংকে চেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে ওষুধ ও ব্যাংক। ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া ৩৩৪টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ৮৯টির, কমেছে ২১৪টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ৩১টির। দিন শেষে ডিএসইএক্স ৩০ পয়েন্ট কমে প্রায় ৬ হাজার ৯৮ পয়েন্টে অবস্থান করছে। তবে ডিএসইএস বা শরিয়াহ সূচক ২ দশমিক ৫২ পয়েন্ট বেড়ে প্রায় একহাজার ৩৯২ পয়েন্টে উঠেছে। ডিএস৩০ সূচক ১০ দশমিক ৯৩ পয়েন্ট কমে প্রায় ২ হাজার ২৩৬ পয়েন্টে নেমেছে।

ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে থাকা কোম্পানিগুলো হলো স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস, ড্রাগন সোয়েটার অ্যান্ড স্পিনিং, গ্রামীণফোন, ইফাদ অটোজ, শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ, ন্যাশনাল টিউবস, সিটি ব্যাংক, বিডি থাই অ্যালুমিনিয়াম, ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন ও লংকাবাংলা ফাইন্যান্স।
দরবৃদ্ধিতে শীর্ষ ১০ কোম্পানি হলো শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ, এসইএমএল আইবিবিএল শরীয়াহ ফান্ড, সিভিও পেট্রোকেমিক্যাল রিফাইনারি, আইসিবি এএমসিএল সোনালি ব্যাংক মিউচুয়াল ফান্ড, ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্স, ফিনিক্স ইন্স্যুরেন্স, ইস্টল্যান্ড ইন্স্যুরেন্স, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক, সিএপিএম বিডিবিএল মিউচুয়াল ফান্ড ও ইস্টার্ন লুব্রিক্যান্টস।

দরপতনের শীর্ষে রয়েছে আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজ, ইসলামী ইন্স্যুরেন্স বাংলাদেশ, জুট স্পিনার্স, ন্যাশনাল টিউবস, নাহি অ্যালুমিনিয়াম কম্পোজিট প্যানেল, মার্কেন্টাইল ইন্স্যুরেন্স, ন্যাশনাল ব্যাংক, ওয়াইমেক্স ইলেকট্রোড, সায়হাম কটন ও আজিজ পাইপস।

এদিকে দিন শেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) লেনদেন আগের দিনের চেয়ে প্রায় ১ কোটি ৩১ লাখ টাকা কমে ২৭ কোটি ২৪ লাখ টাকার শেয়ার হাতবদল হয়েছে। লেনদেনে থাকা ২২৯টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ৫৯টির, কমেছে ১৪৭টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ২৩টির দর। দিন শেষে সিএসই সার্বিক সূচক (সিএএসপিআই) প্রায় ৫৪ পয়েন্ট কমে ১৮ হাজার ৮৩১ পয়েন্টে অবস্থান করছে।

 

 

 

শীলন/৩০৮

নিউজটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved 2018 shilonbangla.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com