শনিবার, ১১ Jul ২০২০, ০২:২৮ অপরাহ্ন

আল্লামা আশরাফ আলী রহ. ইন্তেকালে শীর্ষ আলেমদের শোক

আল্লামা আশরাফ আলী রহ. ইন্তেকালে শীর্ষ আলেমদের শোক

আল্লামা আশরাফ আলী রহ. ইন্তেকালে শীর্ষ আলেমদের শোক

শীলন বাংলা রিপোর্ট :: জামিয়া শারইয়্যাহ মালিবাগের শায়খুল হাদীস ও প্রিন্সিপাল এবং কওমি মাদরাসার সর্বোচ্চ সংস্থা আল হাইয়াতুল উলইয়া লিল জামিয়াতিল কওমিয়া বাংলাদেশের কো-চেয়ারম্যান ও বরেণ্য আলেমেদ্বীন আল্লামা আশরাফ আলী রহ. এর ইন্তেকালে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন দেশের শীর্ষ আলেমগণ।

ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ : বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামার চেয়ারম্যান ও ঐতিহাসিক শোলাকিয়া ঈদগাহের গ্র্যান্ড ইমাম শাইখুল হাদীস আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ তাঁর শোকবার্তায় বলেন, মানুষের জন্ম ও মৃত্যু আল্লাহর পক্ষ থেকেই নির্ধারিত। আল্লাহর ইচ্ছাতেই মানুষ তার রবের ডাকে সাড়া দিয়ে চলে যান। আল্লামা আশরাফ আলী (রহ.) আমাদের সময়কার খ্যাতিমান আলেমে দ্বীন ছিলেন। আমি তাঁর ছাত্রত্ব অর্জন করার সৌভাগ্য লাভ করেছিলাম। তিনি দ্বীনের বহুমুখী খেদমত আঞ্জাম দিয়ে গেছেন।

মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম : ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই, নায়েবে আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম, মহাসচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম।

মঙ্গলবার এক শোক বাণীতে চরমোনাই পীর বলেন, মাওলানা আশরাফ আলী ছিলেন দেশের বিশিষ্ট আলেমেদ্বীন, হাদিস শাস্ত্রের পন্ডিত ও বয়োবৃদ্ধ আলেম। তিনি অসংখ্য মাদরাসায় হাদীসের দরস দিয়েছেন এবং বহুসংখ্যক মাদরাসা প্রতিষ্ঠাতা ও অসংখ্য দীনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পৃষ্ঠপোষক ছিলেন।

চরমোনাই পীর বলেন, কওমি মাদরাসার সনদের স্বীকৃতিসহ কওমি শিক্ষা ব্যবস্থার সার্বিক উন্নয়নে মরহুমের বিশেষ অবদান স্মরণীয় হয়ে থাকবে। দ্বীনি শিক্ষার প্রচার ও প্রসারে মরহুমের বিশেষ অবদানের কথা জাতি শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ রাখবে। একই সাথে মরহুম আল্লামা আশরাফ আলী রহ. দ্বীনকে বিজয়ী আদর্শ হিসেবে প্রতিষ্ঠার সংগ্রামেও নিবেদিতপ্রাণ ছিলেন। মরহুমের ইন্তেকালে জাতি একজন নিবেদিতপ্রাণ আলেমেদ্বীনকে হারালো। যার অভাব দীর্ঘদিন অনুভূত হবে। পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, মরহুমের শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করে মরহুমের সকল নেককাজকে কবুল করে তাঁকে জান্নাতের সর্বোচ্চ মর্যাদা দান করুন, আমীন।

আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী : ৩১ ডিসেম্বর মঙ্গলবার সংবাদ মাধ্যমে প্রেরিত এক শোকবার্তায় আল্লামা বাবুনগরী বলেন আশরাফ আলী রহ. ইলমে হাদীস ও দ্বীনি শিক্ষার প্রচার-প্রসারে জীবনের শেষ পর্যন্ত হাদীসের মসনদে বসে ইলমপীপাসু তালেবে ইলমদের মাঝে হাদীসে নববীর দরস দিয়েছেন।একাধারে কয়েকটি মাদরাসার শাইখুল হাদীস ছিলেন তিনি।

আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী মরহুমের শোক সন্তপ্ত পরিবারবর্গের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে বলেন, মহান প্রভুর দরবারে আমি দুআ করি, আল্লাহ তাআলা তাঁর সকল দ্বীনি খেদমতকে কবুল করুন এবং ত্রুটি-বিচ্যুতি ক্ষমা করে জান্নাতের সর্বোচ্চ স্থান দান করুন এবং তাঁর অগণিত ছাত্র,ভক্ত,শুভানুধ্যায়ী সকলকে সবরে-জামিলের তাওফীক দান করুন,আমিন।

বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস : মরহুমের ইন্তেকালে গভীর শোক ও সমবেনা জ্ঞাপন করেছেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের আমীর শায়খুল হাদীস আল্লামা ইসমাঈল নূরপুরী, সিনিয়র নায়েবে আমীর মাওলানা যোবায়ের আহমদ আনসারী ও মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক।

শোক বানীতে নেতৃদ্বয় বলেন, আল্লামা আশরাফ আলী ইসলাম ও দেশ বিরোধী ষড়যন্ত্রের মোকাবেলা ও খেলাফত প্রতিষ্ঠার কাজে মৃত্যুর আগ পর্যন্ত ভূমিকা রেখেগেছেন।

নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, মরহুম দ্বীনি শিক্ষা সম্প্রসারণ ও কওমী মাদরাসা শিক্ষার সরকারী স্বীকৃতি আদায়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছেন, তিনি দ্বীর্ঘ সময় বোখারী শরীফের দারস দিয়েছেন, দেশ বিদেশে তার অসংখ্য ছাত্র ও ভক্ত রয়েছে। তার মৃত্যুতে একজন দেশপ্রেমিক ও আধ্যাতিক এবং খেলাফত প্রতিষ্ঠার রাহবারকে হারিয়েছে। যা অপূরণীয়।

নিউজটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved 2018 shilonbangla.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com